বাড়ী-ঘরে হামলা ও প্রাণনাশের হুমকি

থানায় অভিযোগ করায়
উলিপুরে প্রতিপক্ষের বাড়ী-ঘরে হামলা, ভাংচুর, লুটপাট।। প্রাণনাশের হুমকি
উলিপুর রিপোর্টার
কুড়িগ্রামের উলিপুরে বাড়ীর সীমানা পার করে গাছ লাগাতে না দেয়ায় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে একটি অসহায় পরিবারের বাড়ী-ঘরে হামলা, ভাঙ্গচুর-লুটপাট ও মারধরের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে গত ১০ ডিসেম্বর/২২ইং সকাল আনুমানিক ৮ টায় উপজেলার উত্তর দলদলিয়া সাহেবের কুটি নামক গ্রামে। এ ব্যপারে উলিপুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে বলে জানাগেছে।
প্রাপ্ত অভিযোগ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানাগেছে, ঐ গ্রামের আজাহার আলীর পুত্র আদম আলীর (৫০) বাড়ী সীমানার ভিতর একই গ্রামের উমর আলীর পুত্র আঃ ছাত্তর গং গাছ   লাগালে আদম আলী তা বাধা দিলে এতে ছাত্তরগং ক্ষিপ্ত হয়ে গত ১৬ নভেম্বর/২২ইং সকাল ৭ টায় স্বদল  বলে লাঠি-সোটা,খন্তে-কোদাল,কাস্তে  ইত্যাদি দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে আদম আলীর বাড়ী-ঘরে অতর্কিতে আক্রমণ করে ভাঙচুর, মারধর ও লুটপাটসহ তান্ডব লিলা চালায়। এ ব্যাপারে অসহায় দিনমজুর আদম আলী উলিপুর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দেন।
অভিযোগের প্রেক্ষিতে থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। এতে প্রতিপক্ষ ছাত্তারগং আরো ক্ষিপ্ত হয়ে পরে। এবং অভিযোগ তুলে নিতে অসহায় আদম আলী ও তার স্ত্রী-পুত্রকে আবারো মার-ধর, বাড়ী-ঘরে মাহলার হুমকি প্রদান করে আসে।  এমতাবস্তায়, ঘটনার দিন ১০ ডিসেম্বর সকাল আনুমানিক ৮ টায় ধরধর, মারমার শব্দে একই ভাবে দ্বিতীয় দফায় প্রতিপক্ষ ছাত্তার (৩৮) ও তার ভাই জাব্বার (৪০), গফ্ফার (৩৪), রানু (৩০) সহ সহযোগী আরো অনেকে আদম আলীর
বাড়ী-ঘরে অতর্কিতে আক্রমণ চালিয়ে ভাঙচুর, লুটপাট ঘটাতে থাকে। এসময় আদম আলীর ১৩ বছরের পুত্র আরমান বাঁধা দিতে গেলে তাকে বেধরক পিটিয়ে মাটিতে ফেলে তাকে মারার উপক্রম হলে প্রতিবেশীগন দৌড়ে এসে তাকে উদ্ধার করে। এ ব্যপারে আদম আলী বাদী হলে থানায় আবারো অভিযোগ করেলে থানা পুলিশ আবারো ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। তবে,এ রিপোর্ট লিখা পর্যন্ত মামলা রিকোর্ট হয়নি বলে জানাগেছে। এদিকে অসহায় ঐ পরিবারটি ছাত্তার বাহিনীর হুমকির মুখে ভিত সন্ত্রসন্ত্রস্ত হয়ে আছে। এলাকাবাসী অবিলম্বে মামলা রিকোর্ট করাসহ বিবাদী পক্ষ আঃ ছাত্তার গংকে গ্রেফতারে দাবী জানিয়েছেন।
ফয়জার রহমান রানু
উলিপুর, কুড়িগ্রাম।
০১৭৪২-৮২৭০৪১

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *